প্যাডম্যান- একটি সংক্ষিপ্ত রিভিউ।

by · Published · Updated

অক্ষয় কুমার যেভাবে দিনের পর দিন নিজেকে ভেঙে চলেছেন, তাতে একটা জিনিস বলতেই হচ্ছে, বলিউডের অন্যান্য খানেদের সিনেমা পয়সা করে ঠিকই, কিন্তু অক্ষয়ের সিনেমাগুলো দেয় ইন্সপিরেশন ! 

বছর দুয়েক আগের কথা। অক্ষয় কুমারকে একবার জনপ্রিয় টিভি শো কফি উইথ করণে প্রশ্ন করা হয়েছিল, ‘আপনার এমন কোন জিনিসটা আছে, যেটা বলিউডের অন্যান্য খানেদের নেই’ ? বুদ্ধিদীপ্ত অক্ষয়ের চটজলদি জবাব ছিল, ‘হাইট’। প্রথমে এয়ারলিফট, রুস্তম, টয়েলেটের সাফল্যের পর এখন প্যাডম্যান। সত্যিই, অক্ষয় কুমার যেভাবে দিনের পর দিন নিজেকে ভেঙে চলেছেন, তাতে একটা জিনিস বলতেই হচ্ছে, বলিউডের অন্যান্য খানেদের সিনেমা পয়সা করে ঠিকই, কিন্তু অক্ষয়ের সিনেমাগুলো দেয় ইন্সপিরেশন ! এবং এই একটা বিষয়ে ইন্ড্রাস্টিতে অক্ষয়ের ধারেকাছে কেউ নেই।
প্যাডম্যান দেখলাম। এবার চট করে সিনেমার ভালো এবং খারাপগুলো নিয়ে একটু আলোচনা করা যাক।

১. প্রথমেই বলতে হয় বিষয় নির্বাচনের কথা। বিশেষত পিরিয়ড বা স্যানিটারি প্যাডের মতন একটা বিষয়, যেটা নিয়ে আজও দেশের একটা বৃহত্তর অংশ খোলাখুলি কথা বলতে রাজি নয়, সেরকম একটা ছবির কথা ভাবা এবং সেটাকে পর্দায় দেখানো সহজ কথা নয়। অক্ষয় পেরেছেন। মনে পড়ে, ক্লাস নাইনের লাইফ সায়েন্স বইতে হর্মোন চ্যাপ্টারে প্রথম পেয়েছিলাম ‘ঋতুচক্র’ শব্দটা। স্বভাবতই কৌতূহলী কিশোর মন প্রশ্ন করেছিল, ‘স্যার, ঋতুচক্র কি’? স্যার উত্তর দেননি, এড়িয়ে গিয়েছিলেন। আরো অনেকটা সময় পরে আস্তে আস্তে বোঝা গিয়েছিল ব্যাপারটা। এবং সেইভাবে দেখলে শুধু আমরাই নয়, এমন অনেক পুরুষই আছেন যাদের এই সাধারণ ব্যাপারটা নিয়ে তেমন কোনো ধারণা নেই। অনেকক্ষেত্রেই মেয়েরাও এই ব্যাপারটা নিয়ে খোলাখুলি কথা বলতে রাজি নয়। ‘প্যাডম্যান’ তাদের সবার জন্য টেক্সট বুকের কাজ করতে পারে।

২. দ্বিতীয় ভালো দিক অক্ষয় কুমার নিজে। ঐ শুরুতে যেরকম বলছিলাম, যে অক্ষয়ের সিনেমাগুলো আজকার ইন্সপিরেশনের কাজ করে ! পুরো সিনেমাটাকে নিজের কাঁধে করে টেনে নিয়ে যাওয়ার দায়িত্ব অক্ষয়ের ওপর ছিল এবং বলাই বাহুল্য, সে কাজে তিনি পুরোপুরি সফল। প্রথমার্ধের বেশ কিছু সময় তাই রাধিকা আপ্তের মতো শক্তিশালী অভিনেত্রীকেও অক্ষয়ের সামনে ফিকে লাগে।

Buy Phentramin D Amazon ৩. ছবির চিত্রনাট্য অত্যন্ত মন দিয়ে সাজানো হয়েছে। কাজেই আড়াই ঘন্টার সিনেমা কখনোই সেই অর্থে ‘বোরিং’ লাগে না। অত্যন্ত সচেতনভাবেই অবাস্তব বা অতিনাটকীয় জায়গাগুলো যত দূর সম্ভব বাদ দেওয়া হয়েছে।

Where Can I Buy Adipex Phentermine ৪. পার্শ্বচরিত্র হিসাবে রাধিকা আপ্তে প্রথমার্ধটা ভালোই সামলেছেন। বিশেষত তার অভিনয়ে সেই সময়কার গ্রাম্য গৃহবধূর ম্যানারিজম বেশ সুন্দরভাবেই ফুটে উঠেছে। বরং দ্বিতীয়ার্ধে রাধিকার অভিনয়ের সুযোগ কম ছিল,এবং সেই জায়গায় পর্দায় এসেছেন সোনম কাপুর। বলাই বাহুল্য, সোনমও হতাশ করেননি। হয়ত এদের দুজনের সাবলীল অভিনয়ের জন্য অক্ষয়ের ক্ষেত্রে প্যাডম্যানের চরিত্রায়ন অনেকক্ষেত্রে সহজ হয়েছে। সিনেমার শেষে সোনম অভিনীত পরী চরিত্রটির পরিণামও যথাযথ এবং বাস্তবসম্মত।

http://pressreleasenigeria.com/tag/australia-and-new-zealand-floor-cleaning-machine-market-trend/ এ ছবির এক্স-ফ্যাক্টর হিসাবে অবশ্যই উল্লেখ করতে হবে পরিচালক আর. বাল্কির নাম। আর. বাল্কি বলিউডে আমার অত্যন্ত পছন্দের পরিচালকদের মধ্যে একজন। কাজেই অক্ষয়ের মুনশিয়ানা আর বাল্কির দক্ষতা, এই দুই যোগ করে তৈরি হয়েছে এক সিনেমাট্যিক মাস্টারপিস। সিনেমার গানগুলোও ভালো, বিশেষত অরিজিত সিং’এর গলায় আজ সে তেরি গানটি মনে দাগ কেটে যায়।

Phentermine Cheapest Price Online এত ভালো ভালো কথা বললাম। তার মানে কি খারাপ কিছুই নেই সিনেমায়। উত্তর হলো, আছে। আমেরিকা বা মালয়েশিয়া থেকে কোটি কোটি টাকার ভুয়ো টার্ন ওভার দেখিয়ে অক্ষয় বারবার স্যাম্পেল হিসাবে সেলুলোজ ফাইবার কিনলো। কিন্তু ডেলিভারির আগে সেই কোম্পানির ব্যাপারে কোনো ক্রশ-চেকিং হলো না কেন, সেটা নিয়ে একটা ধ্বন্দ থেকেই যায়। পাশাপাশি ইউনাইটেড নেশনসকে ‘ইউনাইটেড কা নেশনস’ বলা বা নিউইয়র্ককে গ্রাম বলা অক্ষয় কিভাবে মঞ্চে উঠে এত ইংরাজি শব্দ বলে, সেটা নিয়েও প্রশ্ন উঠতে পারে। তবে ছবিটা যখন সত্যি ঘটনা অবলম্বনে, তখন এরকম দু’একটা মাইনর মিস্টেক অগ্রাহ্য করা যেতেই পারে।

Legitimate Phentermine Online 2013 তাহলে সব মিলিয়ে, অক্ষয় কুমার অভিনীত ‘প্যাডম্যান’ ছবিটি আপনাকে দেখতেই হবে। ইতিমধ্যেই হল ফেরত দর্শকদের বিচারে এই ছবি হিট। পাশাপাশি এর পরেই আসছে ‘গোল্ড’ আর রজনীকান্তের বিপরীতে ‘রোবোট ২’। বক্স-অফিসে এই অক্ষয়-ঝড় কবে থামবে, সেটা অবশ্য সময়ই বলবে।

Share this.